খুলনা, বাংলাদেশ | ১৩ ফাল্গুন, ১৪৩০ | ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪

Breaking News

  তিন দিনের সফরে ঢাকায় এসেছেন ভারতের বিমানবাহিনী প্রধান
  ভারতের জনপ্রিয় গজল শিল্পী পঙ্কজ উদাস মারা গেছেন

রুবাইয়াতে পদ্মা সেতু

গাজী আবদুল্লাহেল বাকী

১.

বাংলাদেশের পদ্মা সেতু উন্নয়নের মাইলফলক,
ছয় পয়েন্ট পনের কিমি লম্বা সেতু দিচ্ছে ঝলক।
মাওয়া হতে জাজিরা তক বাঁধলো সেতু দুই পরগানা,
সেতু সৌধ উদ্ভাসিত পদ্মা বুকে জাগলো চমক।

২.
সেতু শুরুর ইতিহাসে টুকরো টুকরো ব্যর্থ নাটক,
হার মেনে যায় যতো ভিলেন পড়লো ভেঙে তামাম ফটক।
শেখ হাসিনার শক্তি-সাহস বুদ্ধি-কৌশল উঠলো জেগে.
পদ্মা সেতু বহুমূখী রূপ পেলো তায় নবীন কনক।

৩.
চুক্তি হলো পদ্মা বুকে বিশ^ব্যাংকের কর্তা সাথে,
বাংলাদেশের প্রতিনিধি দিলেন স্বাক্ষর সবল হাতে।
দূর্নীতির এক অজুহাতে বিশ^ব্যাংক ভাঙলো চুক্তি,
নিজ ক্ষমতা হলো জয়ী, সেই আনন্দে সবাই মাতে।

৪.
ভবিষ্যতের বিষয় এটি নিজ সামর্থের অর্থায়নে,
দেশ মাতৃকার মূল কর্ণধার ভাবলো অনেক নিজের মনে।
কেমনে সফল হতে পারে এমন বিশাল কর্মযজ্ঞ,
দিলের সাহস উঠলো জেগে ভিড়লো তরী সযতনে।

৫.
উথাল পদ্মা ভাবলো নিজে মধুর হাওয়া আজ কেনো বয়?
বুঝলো নদী বাংলাদেশের স্বপ্ন এটি জাগলো অভয়।
পারাপারের কষ্ট-কঠিন দূর হবে সব ক্লান্তি ধকল,
বৃদ্ধি পাবে মূল জিডিপি, প্রবৃদ্ধির হার বাড়বে নিশ্চয়।

৬.
ইচ্ছা থাকলে হয় যে উপায়, সৎ প্রচেষ্টা হয়না বিফল,
ষড়যন্ত্র হার মেনে যায়, ধুর প্রচেষ্টা হয় যে অচল।
দুটি বিজয় উদ্ভাসিতÑস্বাধীনতা আর পদ্মা ব্রীজ,
বঙ্গবন্ধুর যোগ্য কন্যা যোগ্য কাজে হয় যে সফল।

৭.
দেশ-সংহতি শক্ত হলে বাস্তবায়ন হয় না দেরী,
আল্লাহর ’পরে থাকলে আস্থা ঐ শোনা যায় দূরে ভেরী।
মনোবল আর আত্মবিশ^াস উজল করে চিত্র দেশের,
সবুজ বাংলার সবুজ আঁচল উড়ছে কিরূপ উর্দ্ধে হেরি!

৮.
পঁচিশতম দীর্ঘ সেতু দেশ মাতৃকার ভাগ্যে লেখা,
এই যে মহৎ উদাহরণ পাল্টে দেবে পুরাণ দেখা।
শ্যামল বাংলার উত্তর-দক্ষিণ, মিলন ঘটায় এই যে সেতু,
নিরাশাকে দাও ছুঁড়ে সব, দেখবে রৌশন আলোর রেখা।

৯.
সড়ক-রেলের মিলন সেতু বন্ধন হলো এই জীবনের,
এমন সৌধের দ্বার দিয়েÑযায় ঘটে সব উত্তরণের।
জোছনা রাতের চাঁদের কিরণ ভাঙবে যখন পদ্মা নীরে,
ভরবে হৃদয় সুখ-আনন্দে, আসবে স্মরণ পরপারের।

১০.
প্রতীক হলো এই যে সেতু সমাজ, জাতি, সংষ্কৃতির,
উৎস এটি পর্যটনের পরিবর্তন নও জাগৃতির।
দশ দিগন্তের স্বাক্ষী হয়ে থাকবে এটি ইতিহাসে,
দারিদ্রতার অপনোদন ঘটবে নতুন কর্মসূচীর।

১১.
ঐতিহাসিক পদ্মা বুকে ্উঠলো গড়ে সেতু-বন্ধন,
বাস্তবতার ভাবলে ভাবনা বিপত্তির হয় অপসারণ।
বাড়বে সুযোগ, বাঁচবে সময়, কাটবে যতো পথের বাঁধা,
তাইতো সেতুর বিষয় নিয়ে লিখছি আমি কয়েক চরণ।

১২.
পদ্মা নদীর কতো স্মৃতি উর্মি লহর দিচ্ছে জানা,
‘পদ্মা, মেঘনা আর যমুনা’ তোমার আমার দিল-ঠিকানা।
পড়ছে মনে মানিক বাবুর ইলিস জেলে কুবের মাঝি,
সব ঠিকানা, ঐ চেয়ে দেখ!পদ্মা সেতু মেলছে ডানা।




খুলনা গেজেটের app পেতে ক্লিক করুন

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

© 2020 khulnagazette all rights reserved

Developed By: Khulna IT, 01711903692

Don`t copy text!