খুলনা, বাংলাদেশ | ২০ শ্রাবণ, ১৪২৮ | ৪ আগস্ট, ২০২১

Breaking News

  পরীমণিকে আটকের পর রাজ মাল্টিমিডিয়ার সত্বাধিকারী নজরুল ইসলাম রাজের বনানীর বাসায় অভিযান চালাচ্ছে র‍্যাব

খুলনার তিন হাসপাতালে আরও ৯ জনের মৃত্যু

নিজস্ব প্রতিবেদক

খুলনার পৃথক তিনটি হাসপাতালে আরও ৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। শুক্রবার (২৫ জুন) সকাল ৮ টা পর্যন্ত আগের ২৪ ঘন্টায় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তাদের মৃত্যু হয়।

মারা যাওয়া ৯ জনের মধ্যে খুলনা করোনা হাসপাতালে ছয়জন, গাজী মেডিকেল হাসপাতালে দুইজন ও জেনারেল হাসপাতালের করোনা ইউনিটে একজনের মৃত্যু হয়েছে।

খুলনা করোনা হাসপাতালের ফোকাল পার্সন ডা. সুহাস রঞ্জন হালদার জানান, গত ২৪ ঘন্টায় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় করোনায় ছয়জনের মৃত্যু হয়েছে।
এরমধ্যে ৫ জন করোনায় এবং একজন উপসর্গে।

এছাড়া ১৩০ শয্যার করোনা হাসপাতালে সকাল ৮ টা পর্যন্ত ১৫৪ জন রোগী ভর্তি ছিল। যার মধ্যে রেডজোনে ৯৬ জন, ইয়ালোজোনে ২৩ জন, এইচডিইউতে ২০ জন এবং আইসিইউতে ১৬ জন চিকিৎসাধীন। গত ২৪ ঘন্টায় নতুন করে ভর্তি হয়েছেন ৩৯ জন। সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ২২ জন।

খুলনা ২৫০ জেনারেল হাসপাতালের করোনা ইউনিটের মুখপাত্র ডা. কাজী আবু রাশেদ জানান, ২৪ ঘন্টায় করোনা ইউনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় খুলনার রূপসা উপজেলার সরদার মনিরুল (৬৮) নামের একজনের মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া হাসপাতালে ভর্তি রয়েছে ৬৯ জন। এরমধ্যে ৩০ জন পুরুষ ও ৩৯ জন নারী রয়েছেন।

গাজী মেডিকেলের স্বত্বাধিকারী গাজী মিজানুর রহমান জানান, ২৪ ঘন্টায় হাসপাতালের করোনা ইউনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় দুইজনের মৃত্যু হয়েছে।
মৃতরা হলেন, নগরীর সোনাডাঙ্গা এলাকার শাহানা জামান ও পিরোজপুর সদরের রহিমা (৮০)।

তিনি আরও জানান, হাসপাতালে ৯৪ জন রোগী ভর্তি রয়েছে। এরমধ্যে আইসিইউতে ৯ জন এবং এইচডিইউতে ৭ জন চিকিৎসাধীন। ২৪ ঘন্টায় হাসপাতালে ২৯ জন ভর্ডি হয়েছে এবং সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ১৯ জন। এছাড়া হাসপাতালের আরটি পিসিআর মেশিনে ৩৫ জনের নমুনা পরীক্ষায় ২২ জনের করোনা পজেটিভ এসেছে।

খুলনা মেডিকেল কলেজের উপাধ্যক্ষ ডা. মেহেদী নেওয়াজ জানান, খুমেকের পিসিআর মেশিনে বৃহস্পতিবার রাতে মোট ৩৮৬ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এর মধ্যে ১৯৯ জনের করোনা রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। যার মধ্যে খুলনার ৩২১ জনের নমুনা পরীক্ষায় নতুন করে ১৭৬ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে।এছাড়া বাগেরহাটে ১৪ জন, যশোরে ৬ জন, সাতক্ষীরায় ২ জন, ও গোপালগঞ্জ জেলার ১ জন রয়েছেন। মোট নমুনা পরীক্ষার তুলনায় শনাক্তের হার ৫১ দশমিক ৫৫ শতাংশ হয়েছে বলে জানা গেছে।

 

খুলনা গেজেট/এনএম/এমএম

আরও সংবাদ




খুলনা গেজেটের app পেতে ক্লিক করুন

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

© 2020 khulnagazette all rights reserved

Developed By: Khulna IT, 01711903692