খুলনা, বাংলাদেশ | ৬ বৈশাখ, ১৪২৮ | ১৯ এপ্রিল, ২০২১

Breaking News

  দেশে করোনায় একদিনে সর্বোচ্চ ১১২ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ৪২৭১
  করোনার কারণে ভারত সফর বাতিল করলেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন
  চলমান লকডাউনের মেয়াদ ২৮ এপ্রিল পর্যন্ত বাড়ছে বলে জানিয়েছেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন; সন্ধ্যায় প্রজ্ঞাপন হতে পারে
  চিকিৎসক-নার্সসহ স্বাস্থ্যকর্মীদের আইডি কার্ড ব্যবহারের নির্দেশ

সেনহাটীতে কারিগরি প্রশিক্ষণ কেন্দ্র নির্মাণ শেষ পর্যায়ে, সাতটি ট্রেডে ভর্তির সুযোগ

একরামুল হোসেন লিপু, দিঘলিয়া

খুলনার দিঘলিয়া উপজেলার সেনহাটী বকশিবাড়ি এলাকায় দেড় একর জায়গার উপর নির্মিত হচ্ছে কারিগরি প্রশিক্ষণ কেন্দ্র। কেন্দ্রটি নির্মিত হলে সাতটি ট্রেডে প্রতি কোর্সে ১ হাজার দুইশ’ ৮০ জন শিক্ষার্থী প্রশিক্ষণ গ্রহণ করার সুযোগ পাবে।

জানা যায়, প্রধানমন্ত্রীর অর্থনৈতিক উপদেষ্টা ড. মসিউর রহমানের ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় তাঁর পৈত্রিক সম্পত্তির উপর কারিগরি প্রশিক্ষণ কেন্দ্রটি নির্মিত হচ্ছে।

খুলনা গণপূর্ত অধিদপ্তর-১ এর তত্ত্বাবধানে এস এন বিল্ডার্স (প্রাঃ) লিমিটেড নামে একটি ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান ২৩ কোটি টাকা ব্যয়ে অবকাঠামোর কাজটি করছে। ইতিমধ্যে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানটি একাডেমিক ভবন, ছাত্রাবাস শিক্ষকদের আবাসিক ভবন নির্মাণ কাজ সম্পন্ন করেছে। বাকি রয়েছে একাডেমিক ভবনের ভীতরকার রাস্তা, সীমানাপ্রাচীর এবং ১টি সাবস্টেশন নির্মাণের কাজ।

খুলনা গণপূর্ত অধিদপ্তরের নির্বাহী প্রকৌশলী মোঃ লতিফুর ইসলাম মুঠোফোনে এ প্রতিবেদককে বলেন, দিঘলিয়া উপজেলার সেনহাটীতে বাস্তবায়নাধীন কারিগরি প্রশিক্ষণ কেন্দ্রটির বাকী অবকাঠামোগত নির্মাণ কাজ সমাপ্ত করে চলতি বছরের জুন মাসে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে হস্তান্তর করা হবে।

প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের অধীনস্থ জনশক্তি কর্মসংস্থান ও প্রশিক্ষণ ব্যুরো প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করছে। প্রকল্পের নাম ‘৪০ টি উপজেলায় ৪০ টি কারিগরি প্রশিক্ষণ কেন্দ্র ও চট্টগ্রামে ১টি ইনস্টিটিউট অব মেরিন টেকনোলজি স্থাপন’।

প্রথমাবস্থায় প্রকল্প বাস্তবায়নের মেয়াদকাল ছিলো সাড়ে ৫ বছর অর্থাৎ ২০১৬ সালের জানুয়ারি থেকে ২০২০ সালের জুন পর্যন্ত। পরবর্তীতে প্রকল্পটির মেয়াদকাল সংশোধিত করে ২০২২ সালের জুন পর্যন্ত বর্ধিত করা হয়েছে। সে অনুযায়ি আগামী বছরের জুন মাসে মূল প্রকল্পের কাজ শেষ হবে।

প্রকল্পটির মূল উদ্দেশ্য হলো, স্থানীয় ও বৈদেশিক শ্রমবাজারের চাহিদা অনুযায়ি প্রশিক্ষণের মাধ্যমে দক্ষতা উন্নয়ন করে বেকার জনগোষ্ঠীর কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি করা, দক্ষ জনবল সরবরাহ বৃদ্ধির মাধ্যমে শিল্প প্রতিষ্ঠানের উৎপাদনশীলতা বৃদ্ধি ও পণ্যের মান উন্নতকরণ ও সারা দেশে দক্ষতা উন্নয়ন প্রশিক্ষণের ক্ষেত্র সুযোগ এবং প্রয়োগ বিস্তৃত করা।

আরডিপিপিতে মোট ট্রেডের সংখ্যা সংখ্যা ১০টি থাকলেও খুলনার দিঘলিয়া উপজেলার সেনহাটী বকশিবাড়ি এলাকায় বাস্তবায়নাধীন কারিগরি প্রশিক্ষণ কেন্দ্রে ৭টি ট্রেডে ভর্তিকৃত ছাত্র-ছাত্রীদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে। ট্রেডগুলি হলোঃ ইলেকট্রিক্যাল, ইলেকট্রনিক্স, আইটি সাপোর্ট টেকনিশিয়ান (কম্পিউটার অপারেশন, গ্রাফিক্স), ওয়েল্ডিং এন্ড ফেব্রিকেশন, সিভিল কন্সস্ট্রাকশন, রেফ্রিজারেশন এন্ড এয়ারকন্ডিশনিং (আরএসি) এবং অটো ড্রাইভিং।

এরমধ্যে অটো ড্রাইভিং ট্রেডে তিন মাস মেয়াদী ৩২০ জন এবং বাকি সবগুলো ট্রেডে ৬ মাস মেয়াদী ১৬০ জন করে সর্বমোট ১ হাজার দুইশ’ ৮০ জন শিক্ষার্থী প্রতি কোর্সে প্রশিক্ষণ গ্রহণ করতে পারবেন।

খুলনা গেজেট/কেএম




আরও সংবাদ




খুলনা গেজেটের app পেতে ক্লিক করুন

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

© 2020 khulnagazette all rights reserved

Developed By: Khulna IT, 01711903692