খুলনা, বাংলাদেশ | ৪ ভাদ্র, ১৪২৯ | ১৯ আগস্ট, ২০২২

Breaking News

  ২৪ ঘন্টায় বিশ্বজুড়ে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৭ লাখ ৩৭ হাজার ৩৪০ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ১ হাজার ৭৫৩ জনের

মোড়েলগঞ্জে বাঁধের জমিতে রাতারাতি দোকান, গণশৌচাগার বন্ধ

এম.পলাশ শরীফ, মোড়েলগঞ্জ 

বাগেরহাটের মোড়েলগঞ্জের পল্লীমঙ্গল এলাকায় গণশৌচাগার বন্ধ করে পানি উন্নয়ন বোর্ডের (ওয়াবদা) বেড়িবাঁধের জমি দখল করে রাতারাতি দোকান ঘর নির্মাণ করেছে একটি প্রভাবশালী মহল। বিষয়টি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করছে এলাকাবাসি।

সরেজমিনে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, উপজেলার খাউলিয়া ইউনিয়নের ৩৫/১ পোল্ডারের আওতাধীন সন্ন্যাসী হয়ে শরণখোলা পর্যন্ত ওয়াবদা বাঁধের আওতায় পল্লীমঙ্গল এলাকায় জমি দখল করে রাতারাতি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান গড়ে তুলেছেন জনৈক মো. দেলোয়ার মুন্সী নামের এক প্রভাবশালী। দোকান ঘরটির পিছনে এখনও বহাল রয়েছে দীর্ঘদিনের গণশৌচাগার। ইউনিয়ন পরিষদ ও স্থানীয়দের সহযোগিতায় বাজার উন্নয়নে পথচারিদের জন্য এ গণশৌচাগার ৮/১০ বছর পূর্বে নির্মিত হয়।

হঠাৎ করে গণশৌচাগার বন্ধ করে জমি দখলে নেয় স্থানীয় ব্যবসায়ী দেলোয়ার মুন্সী। স্থানীয়দের প্রশ্ন, ওয়াবদার জমি ও জনগুরুত্বপূর্ণ গণশৌচাগার বন্ধ করে কিভাবে রাতারাতি দোকানঘর তুললেন দেলোয়ার মুন্সী ?

এ বিষয়ে দোলোয়ার মুন্সী জানান, পানি উন্নয়ন বোর্ড কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে তিনি জমি ক্রয় করে দোকান নির্মাণ করেছেন। বিষয়টি স্থানীয় চেয়ারম্যানকেও জানিয়েছেন।

এ সর্ম্পকে ইউপি চেয়ারম্যান মাষ্টার মো. সাইদুর রহমান বলেন, ভেরিবাঁধের জমিতে দোকান নির্মাণের বিষয়টি তিনি অবগত নন। ওই ব্যবসায়ীকে পরিষদের মাধ্যমে নোটিশ করে ডাকা হচ্ছে। তবে, কিছুদিন পূর্বে সহকারি কমিশনার (ভূমি) মহোদয় ঘটনাস্থলে সরেজমিনে পরিদর্শন করেছেন। বিষয়টি আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য ওই কর্মকর্তাকে অনুরোধ করেছেন তিনি।

বাগেরহাট জেলা পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. মাসুম বিল্লাহ্ বলেন, খাউলিয়ার পল্লীমঙ্গল এলাকায় বেড়িবাঁধের জায়গা বে-দখলের বিষয়টি জানা নেই। সরকারি জমি বিক্রি করার কারো ইখতিয়ার নেই। বিষয়টি খোঁজ নিয়ে দেখা হচ্ছে। জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

খুলনা গেজেট/ এস আই




আরও সংবাদ

খুলনা গেজেটের app পেতে ক্লিক করুন

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

© 2020 khulnagazette all rights reserved

Developed By: Khulna IT, 01711903692