খুলনা, বাংলাদেশ | ২৯ আষাঢ়, ১৪৩১ | ১৩ জুলাই, ২০২৪

Breaking News

  কুষ্টিয়ায় সেপটিক ট্যাংকে নেমে প্রাণ গেল ২ রাজমিস্ত্রির
  পঞ্চম বর্ষে পা রাখলো ‘খুলনা গেজেট ‘। প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে সকল পাঠক, বিজ্ঞাপনদাতা ও শুভানুধ্যায়ীদের শুভেচ্ছা।

বেশি দামে মুরগির বাচ্চা বিক্রির অপরাধে জরিমানা, অভিযোগকারী পেল পুরুস্কার

নিজস্ব প্রতিবেদক, বাগেরহাট

বাগেরহাটে বেশি দামে ব্রয়লার মুরগির বাচ্চা বিক্রির অপরাধে আদর্শ ফিড কর্নারের স্বত্ত্বাধিকারী নারায়ন চন্দ্র দেকে ২০ হাজার টাকা জরিমানা করেছে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর। বুধবার (২৯ মার্চ) দুপুরে বাগেরহাট শহরের আটাপট্টি এলাকায় অভিযান চালিয়ে এই জরিমানার আদেশ দেন ভোক্তা অধিকার সংরক্ষন অধিদপ্তর, বাগেরহাটের সহকারি পরিচালক আব্দুল্লাহ আল ইমরান। এছাড়া অভিযোগকারী পোল্ট্রি চাষী মিজানুর রহমানকে প্রনোদনা হিসেবে জরিমানার ২৫ শতাংশ ৫ হাজার টাকা প্রদান করা হয়েছে।

অভিযোগকারী পোল্ট্রি চাষী মিজানুর রহমান বলেন, আদর্শ ফিড কর্নার ২৮ মার্চ এক ব্যক্তির কাছে ৫৮ টাকা ৫৮ টাকা পিচ হিসেবে মুরগির বাচ্চা বিক্রি করেন। একই দিনে একই বাচ্চা আমার কাছে ৭২ টাকা পিচ হিসাবে বিক্রি করে। বিষয়টি আমার কাছে অন্যায় মনে হয়েছে। যার কারণে আমি ভোক্তা অধিকার সংরক্ষন অধিদপ্তরে অভিযোগ দিয়েছিলাম। আজকে জরিমানা করেছে। সেই সাথে আমাকে জরিমানার ২৫ শতাংশ দিয়েছেন। এটা খুবই ভাল লেগেছে। তবে আমার কাছ থেকে নেওয়া অতিরিক্ত মূল্য ওই ব্যবসায়ীর কাছ থেকে ফেরত নেওয়ার প্রয়োজন ছিল।

এছাড়া, একই দিনে বাগেরহাট শহরের ঘরোয়া হোটেলে পুরোনো দিনের বাসি পিয়াজু ও বেগুনি সংরক্ষণের অপরাধে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন-২০০৯ অনুযায়ী ৩ হাজার টাকা জরিমানা করেছে। ভবিষ্যতে এ ধরণের কার্যক্রম পরিচালনা না করার জন্য সতর্ক করেছেন।

ভোক্তা অধিকার সংরক্ষন অধিদপ্তর, বাগেরহাটের সহকারি পরিচালক আব্দুল্লাহ আল ইমরান বলেন, এক চাষীর অভিযোগের সত্যতা পেয়ে আদর্শ ফিড কর্নারকে ২০ হাজার টাকা জরিমানা করেছি। এছাড়া পুরোনো দিনের বাসি পিয়াজু ও বেগুনি সংরক্ষণের অপরাধে ঘরোয়া হোটেলকে ৩ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। একই দিনে বিভিন্ন স্থানে দ্রব্য মূল্য সহনীয় রাখতে এবং মানসম্মত পন্য বিক্রিতে সচেতনতা বৃদ্ধির জন্য লিপলেট ও প্রচারপত্র বিতরণ করা হয়েছে। এধরনের অভিযান অব্যাহত থাকবে বলেও জানান এই কর্মকর্তা।

খুলনা গেজেট/ এসজেড




আরও সংবাদ

খুলনা গেজেটের app পেতে ক্লিক করুন

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

© 2020 khulnagazette all rights reserved

Developed By: Khulna IT, 01711903692

Don`t copy text!