খুলনা, বাংলাদেশ | ২৯ শ্রাবণ, ১৪২৯ | ১৩ আগস্ট, ২০২২

Breaking News

  কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় ফিলিং স্টেশনে আগুন, নিহত ২
  শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে সাপ্তাহিক ছুটি দুই দিনের বিষয়টি ভাবা হচ্ছে : শিক্ষামন্ত্রী
  করোনায় আরও ২ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ২১৮
  নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় চালককে ছুরিকাঘাতে হত্যার পর ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা ছিনতাই

জমি ভাগাভাগি নিয়ে ভাবিকে পিটিয়ে খুন

গেজেট ডেস্ক

কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে জমি-সংক্রান্ত বিরোধের জেরধরে ভাবীকে পিটিয়ে হত্যা করেছেন দেবর। শনিবার (১ জানুয়ারি) বিকেলে উপজেলার মথুরাপুর ইউনিয়নের গোবরগাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। বিষয়টি নিশ্চিত করেন দৌলতপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এসএম জাবীদ হাসান।

নিহত ওই নারীর নাম নাজমা আক্তার (৩৫)। তিনি দৌলতপুর উপজেলার মথুরাপুর ইউনিয়নের ২ নম্বর ওয়ার্ডের গোবরগাড়া গ্রামের গিয়াস উদ্দিনের স্ত্রীর। তার এক ছেলে ও এক মেয়ে সন্তান রয়েছে।

সূত্রে জানা গেছে, শনিবার বিকেলে পৈতৃক জমি ভাগাভাগি নিয়ে পূর্বশত্রুতার জের ধরে গিয়াস উদ্দিনের সাথে তার আপন ছোট ভাই শাহীন ও তুহিনের ঝগড়া শুরু হয়। একপর্যায়ে শাহীন ও তুহিন বাঁশ দিয়ে গিয়াস উদ্দিনের স্ত্রী নাজমা আক্তারের মাথাসহ শরীরের বিভিন্ন জায়গায় আঘাত করে। এতে ঘটনাস্থলেই নাজমা আক্তারের মৃত্যু হয়।

নিহত নাজমা আক্তারের ছেলে মুস্তাকিন বলেন, পৈতৃক জমি ভাগাভাগি নিয়ে ২০১৪ সাল থেকে আমার বাবার (গিয়াস উদ্দিন) সঙ্গে চাচা শাহীন ও তুহিন উদ্দিনের বিরোধ শুরু হয়। বাড়ির সেই জমি নিয়ে আজ বিকেলে আমার মাকে বাঁশ দিয়ে মেরে হত্যা করে শাহীন ও তুহিন। আমি তাদের শাস্তি চাই।

দৌলতপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এসএম জাবীদ হাসান বলেন, জমি-সংক্রান্ত বিরোধের জেরে দেবরের লাঠির আঘাতে ভাবির মৃত্যু হয়েছে। মরদেহ উদ্ধার করে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। এঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।




খুলনা গেজেটের app পেতে ক্লিক করুন

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

© 2020 khulnagazette all rights reserved

Developed By: Khulna IT, 01711903692